Breaking News

এই নদীতে হটাৎ বয়ে আসছে সোনা, রাতারাতি এলাকাবাসী হচ্ছেন কোটিপতি

এই দুনিয়ায় এমন কিছু কিছু জিনিস বেরিয়ে আসে যা মানুষকে অবাক করে দেয়। সম্প্রতি ইন্দোনেশিয়া (Indonesia) থেকে এমনই এক খবর সামনে এসেছে। ইন্দোনেশিয়ায় সোনার দ্বীপের (Golden Island) খোঁজ মিলেছে। এখান থেকে সোনার গহনা, আংটি, বৌদ্ধ মূর্তির মত মূল্যবান জিনিসের সন্ধান পাওয়া গেছে।

হ্যাঁ, এই সোনার (Gold) দ্বীপ ইন্দোনেশিয়ার পালেমগ্রাম প্রদেশের মুশি নদীর তীরে বহু বছর পর সন্ধান প্রাপ্ত। শুধু তাই নয় এখানে মানুষ খেকো ভয়ংকর সাপেরও বসবাস। এখানকার আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাত প্রাচীন। প্রাচীন ইতিহাসে ইন্দোনেশিয়ার এই দ্বীপকে শ্রীবিজয়া শহর বলা হতো।

ইন্দোনেশিয়ার এই সোনার দ্বীপের ইতিহাস অনেক। এটিকে সেই সময় অত্যন্ত সমৃদ্ধ শহর বলা হত। এটি বাণিজ্য ক্ষেত্র বিশ্বের পূর্ব ও পশ্চিমাঞ্চগুলিকে যুক্ত করে। এই দ্বীপ ইন্দোনেশিয়ার মুশি নদীর (Musi river) তীরে অবস্থিত। ইতিহাস থেকে জানা যায়, এখানে মালাক্কা উপসাগরে সেই সময় রাজ রাজাদের যুদ্ধের কারণে শহরটি ধ্বংস হয়েছিল।

ঐতিহাসিকদের মতে, পরাজয়ের পরেও প্রায় 2 দশক ধরে বাণিজ্য চালিয়েছে। বলা হচ্ছে, ১৩৯০ সালের শ্রীবিজয় রাজের রাজা পরমেশ্বরো যখন যুদ্ধের জন্য এলাকায় প্রবেশ করেন সেই সময় প্রতিবেশী রাজার কাছে পরাজিত হয়েছিল। তারপর শ্রীবিজয়ার রাজারা আশ্রয়ের জন্য অন্য পথ খোঁজে।

ইতিহাসবিদদের দাবি, ওই সাম্রাজ্য মুশি নদীর তলদেশে তলিয়ে গিয়েছিল। এখন ওই সাম্রাজ্যের মূল্যবান অলংকার পাওয়ার খবর প্রায়ই শোনা যায়। ডুবুরিরা নদীর তলদেশ থেকে ক্রমাগত সোনার অলংকার, সিরামিক পাত্র, মন্দিরের ঘন্টা, সোনার মুদ্রা বিভিন্ন মূল্যবান জিনিসের সন্ধান পাচ্ছে।

Check Also

সোনার দামে চূড়ান্ত পতন, প্রিয় ধাতুর দাম কমায় মুখে হাসি মধ্যবিত্তদের

সোনার দামের ওঠা নামা লেগেই আছে। আজকের দিনে সোনার দাম অনেকটা কম, সাধারণ মানুষের কাছে …