Breaking News

চৌবাচ্চায় মাছ চাষ করে যুবক অবাক করে দিলেন পুরো গ্রামকে! এত পরিমান মাছ হয়, যার ফলে রাতরাতি লাখপতি যুবক, তুমুল ভাইরাল ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদন: প্রাচীনকাল থেকে মানুষ তাদের খাদ্য তালিকায় অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ হিসেবে মাছ কে খেয়ে আসছে। মাছ এমন একটি খাবার যেটা খেতে ছোট থেকে বড় সকলেই পছন্দ করে। মাছে অনীহা এমন লোক খুব কম ই আছে। তারপর ও মাছ আমাদের সকল কিছুর সাথে মিশে আছে।

মাছের হরেক রকম রেসিপির মধ্যে গ্রামীণ রান্না গুলো বেশ জনপ্রিয়। অনেকেই আবার মাছ এতটা পছন্দ না করলেও মাছ চাষ বেশি পছন্দের মনে করে।অনেকই শখের বশে মাছ চাষ করে থাকে। মাছ চাষ করতে সবথেকে বেশি দরকার হয় ধোর্য ধরার।

যার সহন ক্ষমতা কম বা বেশি সময় বসে কাটানো কষ্টসাধ্য তাদের কাছে মাছ চাষ টা একটু বেশি কঠিন। মাছ চাষ নানান কৌশল রয়েছে। অবস্থান ভেদে বিভিন্ন জায়গায় বিভিন্ন রকমের মাছ চাষ করার কৌশল দেখা যায়। এর মধ্যে কিছু কিছু পদ্ধতি আবার একটু বেশি দেখা যায়। প্রায় সব দেশেই পুকুরে মাছ চাষ প্রচলনটি দেখা যায়।

সময় পেলেই মানুষ মাছ চাষ করতে পছন্দ করে । এতে যেমন সময় কেটে যায় তেমনি মাছ ধরার অনাবিল আনন্দ ও পাওয়া যায়। যুগের ক্রমবিকাশের ধরায় পৃথিবী উন্নতির সর্বোচ্চ শিখরে । সব থেকে বেশি এর জন্য প্রভাবফেলেছে সোশ্যাল মিডিয়া।

যেকোনো ধরনের সংবাদ হোক বা চলমান পরিস্থিতি হোক না কেনো সবার আগে সেটা আমরা সোশ্যাল মিডিয়া থেকে জানতে পারি। নানান ধরনের ভিডিও মাঝে মাঝে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয় ।এই ভিডিওটিতে দেখানো হয়েছে কিভাবে ভিন্ন পদ্ধতিতে অল্প জায়গায় অল্প সময়ে এবং কম খরচে বায়োফ্লক সিস্টেমে চৌবাচ্চার মধ্যে মাগুর মাছ চাষ করা যায় ।

এই পদ্ধতিতে মাছ চাষ করার অনেকগুলো সুবিধা রয়েছে। আমাদের মধ্যে অনেক মানুষ আছে যারা ইচ্ছা থাকা সত্ত্বেও পুকুর না থাকার কারণে মাছ চাষ করা হয়না। কিন্তু বায়োফ্লক পদ্ধতিতে মাছ চাষ করলে আপনার পুকুর এর প্রয়োজন হবে না।

বাড়ির আঙিনায় ছোট একটি চৌবাচ্চায় নির্দিষ্ট নিয়ম মেনে আপনার চাষ করতে পারেন বিভিন্ন প্রজাতির মাছ।বায়োফ্লক পদ্ধতি একটি আধুনিক পদ্ধতি। প্রচলিত পদ্ধতিতে যেখানে বাড়তি খাবারের একটি বড় অংশই অপচয় হয় যা পুকুরে জমে গিয়ে পানির গুণাগুণ নষ্ট করে দেয়, বায়োফ্লক পদ্ধতিতে এ অপচয় প্রায় শূন্য।

এমনকি খুব কম পানি পরিবর্তন করে বা একবারও পানি পরিবর্তন না করে ছোট চৌবাচ্চার মধ্যে বেশি ঘনত্বে মাছ চাষ করা যায়। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এই প্রযুক্তি ব্যবহার করে বিভিন্ন প্রজাতির মাছ চাষ করা হয়।কিন্তু আমাদের দেশে এ প্রযুক্তির মাধ্যমে মাছ চাষ এখনও ব্যাপকভাবে শুরু হয়নি।

তাই আমাদের দেশে সচরাচর চাষকৃত মাছ যেমন- তেলাপিয়া, রুই, শিং, মাগুর, পাবদা, গুলশা ও চিংড়ীসহ বিভিন্ন প্রজাতির মাছ চাষ করা যেতে পারে। তবে, যারা নতুন করে এই প্রযুক্তি ব্যবহার করে মাছ চাষ শুরু করতে চান তাদের অবশ্যই প্রথমে তেলাপিয়া, শিং ও মাগুর মাছ দিয়ে চাষ শুরু সমীচীন হবে।

আজকের এই ভিডিওটিতে মাগুর মাছের বায়োফ্লক পদ্ধতিতে চাষের ভিডিও ধারণ করা হয়েছে।এত বড় মাছ যে মাছের জন্য পানি দেখা যাচ্ছে না। এখানে খাবার প্রয়োগ করার চিত্র ধারণ করা হয়েছে। মাছের এই দৃশ্যগুলো দেখতে অনেক সুন্দর।

এই ভিডিওটি যখন ইন্টারনেটে আপলোড করা হয় তখন মুহূর্তের মধ্যেই ভাইরাল হয়ে যায়। এবং এই ভিডিওটি দেখে অনেক মানুষ অনুপ্রাণিত হয়েছে বায়োফ্লক পদ্ধতিতে মাছ চাষ করার জন্য। যদিও এই পদ্ধতিটি আমাদের দেশে নতুন যার কারণে অধিকাংশ মানুষ এই বিষয়টি অজানা রয়ে গেছে।

Check Also

বিদেশী জাতের এই ময়ূর পালন করে, রাতারাতি লাখপতি হয়ে গেলেন সুন্দরী যুবতী। রইল ভিডিও সহ ময়ূর পালনের যাবতীয় গোপন টিপস।

নিজস্ব প্রতিবেদন:প্রাচীনকাল থেকেই সুস্বাদু মাংস হিসেবে পরিগণিত হয়ে আসছে পাখির মাংস। এরই ধারাবাহিকতায় আধুনিক যুগের …