Breaking News

বিলের মধ্যে মাছ ধরতে গিয়ে ঘটে গেল অবাক কান্ড। সাপের মতো লম্বা দেখতে কালো রঙের একটি মাছের দেখা মিলল, ভাইরাল ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদন: আমরা অনেকেই মাছ ধরতে খুব পছন্দ করি। বাঙ্গালীদের মধ্যে অনেকেপেশা আবার অনেকের নেশাও বটে। মানুষ জীবনধারণের জন্য ভিন্ন ধরনের পেশায় নিয়োজিত থাকে। গ্রামে মানুষের পেশার মধ্যে অন্যতম একটি পেশা হচ্ছে মাছ ধরা। আবার অনেকে শখের বসেও মাছ ধরে থাকে।প্রাচীন কাল থেকেই মানুষ খাদ্য ও আমিষের চাহিদা পূরণ করতে অন্যতম পরিপূরক হিসেবে মাছ শিকার করে খেয়ে আসছে। মাছ অতি সহজ লভ্য ও পুষ্টির এমন একটি ভান্ডার ।

যার দ্বারা একজন মানব শরীরের পুষ্টি চাহিদা পূরণ করা যায়। মাছের বিভিন্ন পুষ্টি উপাদান যা বেড়ে উঠতে অনেক সাহায্য করে। অনেকের কাছে মাছ শিকার করা একটি নেশার মতো। মাছ শিকার করা যেমন মজার তেমনি এর মাধ্যমে পারিবারিক পুষ্টি চাহিদা সহ রোজগার ও করা যায়। মাছ ধরা এক ধরনের প্রতিভা। সকলেই মাছ শিকার করতে পারে না। সময়ের ব্যবধানে ও উন্নত প্রযুক্তির মাধ্যমে মাছ শিকার সহজ হলেও।

আজকের এই ভিডিওটিতে মাছ ধরতে যে সরঞ্জাম কি ব্যবহার করা হয়েছে তা গ্রাম্য ভাষায় কোচ নামে পরিচিত।এটি একটি দীর্ঘ বর্শার মত যন্ত্র, যা মাছ শিকারে ব্যবহৃত হয়। মাছের উপর বেশ খানিকটা দূর থেকে টার্গেট করে টেটা নিক্ষেপ করে শিকার করা হয়। বাংলাদেশের বিভিন্ন বিলে প্রতিবছর আষাঢ় থেকে ভাদ্র মাস পর্যন্ত যেসব যন্ত্র দিয়ে মাছ ধরা হয়, তার মধ্যে কোঁচ অন্যতম। বর্শা জাতীয় দশ-পনেরোটি অগ্রভাগ তীক্ষ্ণ ধারালো গোলাকার লোহার টুকরো বাঁশের চোখা অগ্রভাগগুলোর মাথায় পরিয়ে দিয়ে কোঁচ বানানো হয়।

দূর থেকে নিক্ষেপযোগ্য করার জন্য অপর একটি বাঁশের সাথে এ অংশ জোড়া দেওয়া হয়। মাছ শিকারীরা দূর থেকে মাছ ধরার এ যন্ত্র মাছকে লক্ষ্য করে নিক্ষেপ করে ঘায়েল করে বড় বড় মাছ শিকার করেন। অনেকে লোহার অগ্রভাগে কালা বা আল তৈরি করে নেন। যেন কোঁচ এককাঁটা বা তেকাঁটায় বিদ্ধ হওয়া মাছ ছুটে যেতে না পারে। মাছ ধরার আধুনিক অনেক উপকরণ বা যন্ত্র আবিষ্কার হলে কোঁচের ব্যবহার অনেক কমে এলেও এর আবেদন এখনো ফুরিয়ে যায়নি। এটি আমাদের প্রাচীনকালের কথা স্মরণ করিয়ে দেয়।

শুরুর দিক সোশ্যাল মিডিয়া শুধু মাত্র যোগাযোগের মাধ্যম হলেও । বর্তমানে নানান জনের নানান ভিডিও আপলোডের মাধ্যমে সহজেই আমরা জানতে পারি । আজকের এই ভিডিওটিতে একটি একটি ছেলে মাছ ধরার জন্য একটি হওড়ে যায়।এবং সেখানে গিয়েছে অনেক মাছ দেখতে পায়।বিভিন্ন ধরনের বড় বড় দেশীয় মাছ সে সেখান থেকে ধরতে থাকে। হাওরটিতে পানির পরিমাণ কমে যাওয়া কারণে মাছগুলো ডাঙ্গায় পড়েছিল।

মানুষ পৃথিবীতে অনেক সময় বিভিন্ন রকমের বিভিন্ন অদ্ভুত জিনিস পত্র পেয়ে থাকে। যা খুব মূল্যবান থাকে। এগুলো কেউ খুঁজে পায়না যার ভাগ্যে আছে সেই এমনিতেই পেয়ে যায়। আমরা অনেক সময় ইউটিউব কিংবা বিভিন্ন সামাজিক মাধ্যমে বিভিন্ন অদ্ভুত জিনিস পাওয়ার ঘটনা শুনে ও দেখে থাকে। তেমনি এই আজকের ভিডিওটিও সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে খুব দ্রুত ভাইরাল হয়ে যায়। এবং বিভিন্ন নেটিজেনদের মধ্যে সমালোচনার ঝড় তুলে দেয়।

আজকের এই ভিডিওটিতে দুজন ছেলে কোচ নিয়ে মাছ ধরতে যায় বিলের মধ্যে। তারা দুজন কোচ দিয়ে বিভিন্ন রকম দেশি মাছ ধরতে থাকে। ধরতে ধরতে তারা একসময় একটি অদ্ভুত রকমের কালো রঙের মাছ ধরে। তা দেখে তারা অবাক হয়ে পড়ে। তারা বুঝতে পারছিল না আসলে এটি কি ধরনের মাছ। প্রথমত তারা মাছটি দেখে ভয় পেয়ে যায়।

ভিডিওটি ইউটিউবে আপলোড করার সাথে সাথে ভাইরাল হয়ে পড়ে। নেটিজেনদের মধ্যে আলোচনার ঝড় তোলে ফেলে। এ ধরনের অদ্ভুত রকমের মাছ ধরার ভিডিও এর পূর্বে কখনো ইউটিউব এ আপলোড হয়নি। যার কারণে নেটিজেনদের কাছে এই ধরনের ভিডিওটি ছিল একদম নতুন। সকল নেটিজেনদের মধ্যে একটি প্রশ্ন জেগেছে যে এই অদ্ভুত মাছটি কি। এবং এই মাছ দিয়ে কি করা হয়।

strong>বিস্তারিত ভিডিওতে দেখুনঃ

Check Also

ডুবার পানি শুকিয়ে যাওয়ায় আটকে গেল বড় মাছ, তিন বালক দারুন কায়দা করে ধরল, ভাইরাল সেই ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন: প্রাচীনকাল থেকেই বাঙালি জাতি কে মাছে ভাতে বাঙালি বলা হয়। বাঙালি মাছ খেতে …