Breaking News

ব্যাঙ শিকার করতে এসে ব্যাঙের চোখ রাঙানোতে ভয়ে পালাল গুই সাপ! এমনই অদ্ভুত ভিডিও তুমুল ভাইরাল নেটদুনিয়ায়।

নিজস্ব প্রতিবেদন:একটি ঋতুতেই বাংলাদেশের গ্রামে-গঞ্জে বেশি শোনা যায় ব্যাঙের ডাক- সেটি হলো বর্ষাকালে। তবে জ্যেষ্ঠের মধ্যে বর্ষার বার্তা এনে যে বৃষ্টিপাত হয় তখনই নিয়মিত হতে থাকে ব্যাঙের ‘ঘ্যাঙর ঘ্যাঙর ঘ্যাঙ’ ডাক শোনা। বর্ষাকালে ব্যাঙের এই ডাক না থাকলে কেমন যেনো পানসে পানসেই লাগে! বৃষ্টি থেমে যাওয়ার পর এই শব্দ মানব মনে এক নতুন শিহরণ দিয়ে যায়।

শহর থেকে গ্রামের দিকে গেলে নানা প্রজাতির ব্যাঙের মধ্যে কুনো ব্যাঙ, গেছো ব্যাঙ তো হরহামেশাই দেখা যায়। সঙ্গে যোগ হয় নানা প্রজাতির সাপের আনাগোনাও। এই মৌসুমের বৃষ্টিপাতে সাপের আবাস্থল ভিজে যায়- তাই প্রাণীটি বেরিয়ে আসে উন্মুক্ত পরিবেশে। আর এ সময়ই প্রকৃতিতে সাপ-ব্যাঙের মধ্যে বিপরীতমুখী সম্পর্কটাও প্রকাশ পায় বেশি- কারণ ব্যাঙ যে সাপের অন্যতম শিকার বা খাদ্য!
তাই ব্যাঙ পেলেই আক্রমণ করে বসে সাপ।

যাইহোক জ্যেষ্ঠের এই মধ্য সময়ে গিয়েছিলাম ভারতের চামতলায় অবস্থিত এ দেশের প্রধান বার্তা সম্পাদক টিটু দাদার খামার বাড়িতে। প্রাকৃতিক এক বৈচিত্র্য যেন ছড়িয়ে রয়েছে বিশাল এই খামার এলাকার চারপাশজুড়ে। নানা প্রজাতির ফলজ, বনজ, ওষুধিসহ অজস্র লতাগুল্মে সাজানো খামারটি। রয়েছে নানা প্রজাতির পাখি, সাপ, ব্যাঙসহ পুকুর ভরা নানা প্রজাতির মাছ।

গতকাল ১৪ জ্যেষ্ঠ দুপুরে গিয়েছিলাম চামতলায় খামার বাড়িটিতে। পুরো বিকেলজুড়ে খামারটি ঘুরে যখন সন্ধ্যা নেমে এলো তখনই পুকুর পাড়ের বৈঠক খানায় বসে ছিলাম। ঠিক তখনই হঠাৎ পরপর তিনটে ব্যাঙ উড়ে এসে বসলো আমার আশপাশে। এরমধ্যে একটি বসলো কাঁধে। রক্ষণাবেক্ষণে থাকা কর্মীরা জানিয়েছিল খুব সাপের আনাগোনা রয়েছে খামারে।

এরমধ্যে বিষধর এবং নির্বিষসহ রয়েছে অজগরও।প্রথমে ভেবেছিলাম কোন পোকা হাত দিতেই উড়ে গিয়ে বসলো সামনের টেবিলে। দ্রুত মোবাইলের আলো জ্বালিয়ে দেখলাম ব্যাঙ! তাৎক্ষণিক মোবাইল ক্যামেরায় ভিডিও করলাম। মনে হচ্ছিল উড়ন্ত জল ব্যাঙ। কিন্তু কম আলোতে ঠিক পরিষ্কার বোঝা যাচ্ছিল না। তবে একটি বিষয় ধারণা করলাম- ওই ব্যাঙ তিনটি খুবই ভীত ছিল।

মনে হয়েছিল কোন শিকারি (সাপ) ওদের তাড়া করেছিল।কিন্তু আমার ধারণা ছিল সত্যি। দেখলাম বিশাল একটি গোখরো সাপ বড় একটি জল ব্যাংকে আস্তে গিলে ফেলে ।এই দৃশ্যটি দেখে আমার গা কেঁপে উঠলো। আমরা সবাই কমবেশি জানি যে সাপের প্রিয় খাদ্য হলো ব্যাঙ। কোন অস্বাভাবিক কথা নয়।

বর্ষার সিজনে যখন ভেংগুলা পুকুর পাড়ে নদীর পাড়ে যাই পোকামাকড় স্বীকার করার জন্য তখন নিজেই সাপের শিকার হয়ে যায়। সাপ এবং ব্যাঙ এর এই দৃশ্যটি আমি খুব স্বাভাবিকভাবে দেখেছিলাম। এমনকি সেই সময় আমার ফোন দিয়ে ভিডিও করেছিলাম। কারণ অনেকেই আছে এই দৃশ্যগুলো কখনো নিজের চোখে দেখেনি। তাই আমি এ দৃশ্যটি ভিডিও করে ফেসবুকে আপলোড করে দিলাম। বিস্তারিত ভিডিও দেখতে পারবেন।

Check Also

সমুদ্রের নীল তিমি কত টা ভয়ংকর হয়! সমুদ্র থেকে লাফ দিয়ে বক শিকার করে নেয় নীল তিমি,নেট দুনিয়াই ভাইরাল সেই ভিডিও।

নিজস্ব প্রতিবেদন: মানুষ সামাজিক জীব।প্রাকৃতিক পরিবেশের মধ্যে সে জন্মে এবং সেখানেই বড় হতে থাকে।ফলে প্রকৃতির …